শনিবার | ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯

রাঙামাটিতে স্কুল শিক্ষককে মারধরের প্রতিবাদে মানববন্ধন

প্রকাশঃ ০৫ অগাস্ট, ২০১৯ ০৩:৩৫:২১ | আপডেটঃ ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০৪:০৭:২৭  |  ৪৬৭
সিএইচটি টুডে ডট কম, রাঙামাটি। রাঙামাটিতে বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষে ঢুকে বখাটে কর্তৃক শিক্ষককে মারধর ও প্রাণনাশ চেষ্টার প্রতিবাদে এবং দোষীদের বিচারের আওতায় এনে শাস্তি প্রদানের দাবিতে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার সকাল ১০টায় রাঙামাটি প্রেসক্লাবের সামনে এ মানববন্ধনে এলাকাবাসী, ছাত্র-ছাত্রীদের অভিভাবক, শিক্ষকবৃন্দ ও বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা অংশ গ্রহণ করে।

মানববন্ধনে অভিযোগ করা হয়, রাঙামাটি মডেল কেজি স্কুল এন্ড কলেজের ইংরেজি শিক্ষক আতাউর রহমান কে গত মঙ্গলবার ক্লাস চলাকালীন সময় শ্রেণি কক্ষে ঢুকে মারধর করে মারত্মক জখম করে একদল বখাটে। এসময় তার চোখসহ সারা শরীর জখম হয় এবং শিক্ষকের কাপড় চোপড় ছিঁড়ে লাঞ্ছিত করা হয়। আহত শিক্ষক এখনও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। জীবন ও শাহ পরাণের নেতৃত্বে হামলা কারীরা এখনও বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে যাচ্ছে এবং উল্টা শিক্ষকদের বিরুদ্ধেই মামলা করে তাদের হয়রানী করছে। মানব বন্ধন থেকে অবিলম্বে শিক্ষক আতাউর রহমানের  উপর হামলাকারীদের শাস্তি দাবি করা হয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন শাহাদাত হোসেন, দশম শ্রেনীর ছাত্র ইফতি, সাবেক ছাত্রী পুষ্পিতা, বর্তমান ছাত্রী সালমা, বায়তুশ শরফের শিক্ষক মোঃ নজরুল, অভিভাবক গনের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রাশেদ আক্তার,মডের স্কুলের শিক্ষক মোঃ জামাল উদ্দিন, রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র মহিউদ্দিন। 

প্রসঙ্গত, রাঙামাটি মডেল কেজি স্কুলের অষ্টম শ্রেণির ইংরেজি ক্লাসে পড়া না পারার কারণে ওই শিক্ষক ক্লাসের সকল ছাত্রছাত্রীকে মৃদু শাসন করে। এর রেশ ধরে ওই যুবকেরা খবর পেয়ে তার উপর হামলা চালায়। মারধরের ঘটনার অভিভাবক ও শিক্ষকরা মিমাংসায় বসলে আলোচনার এক পর্যায়ে ওই ছাত্রীর মা সবার সামনেই মেয়েটিকে থাপ্পড় মারে। এ সময় ছাত্রীটি অপমানিত বোধ করে ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। এসময় সখানে উপস্থিত তার বাবা-মা ও শিক্ষকরা ছাত্রীটিকে হাসপাতালে নিয়ে যায়। সে বর্তমানে সুস্থ্য আছে।

রাঙামাটি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions