বুধবার | ১৭ এপ্রিল, ২০২৪
বান্দরবানে

থানচিতে র‌্যাবের সাথে সন্ত্রাসীদের গোলাগুলি, ৫সন্ত্রাসী আটক : র‌্যাব মহাপরিচালক

প্রকাশঃ ০৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩ ০৬:৪৮:২০ | আপডেটঃ ১৩ এপ্রিল, ২০২৪ ১০:৫৬:৫৫  |  ৫৪৪
সিএইচটি টুডে ডট কম, বান্দরবান। বান্দরবানে র‌্যাবের সাথে কুকি চীন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) ও নব্য জঙ্গী সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারকিয়ার সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে, এই ঘটনায় র‌্যাবের ৮সদস্য আহত হয়েছে এবং ৫ সন্ত্রাসীকে আটক করেছে র‌্যাব। মঙ্গলবার (৭ ফেব্রুয়ারী) ভোরে এই ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, বান্দরবানের থানচি লিক্রী সড়কের ২৭কিলোমিটার নামক স্থানে রেমাক্রী ব্রিজ এলাকার রুমা উপজেলার রেমাক্রী প্রাংশা ইউনিয়নের দূর্গম এলাকায় অভিযান চালিয়ে জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারকীয়ার ৫ জঙ্গি সদস্যকে আটক করেছে র‌্যাব, এসময় গোলাগুলির ঘটনায় র‌্যাবের ৮ সদস্য আহত হয়। অভিযান এখনো অব্যাহত রয়েছে।

এদিকে ৭ফেব্রুয়ারী (মঙ্গলবার) বিকালে র‌্যাবের মহাপরিচালক এম খুরশীদ হোসেন বান্দরবানের থানচি উপজেলার তমাতুঙ্গী নামক স্থানে উপস্থিত থেকে সাংবাদিকদের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। এসময় তিনি জানান, পাহাড়ের সশস্ত্র সংগঠন কুকি চীন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) ও নব্য জঙ্গীদের প্রশিক্ষণ ক্যাম্প আস্তানায় অভিযান চালায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এসময় অস্ত্রধারী সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছুড়ে। এসময় র‌্যাব সদস্যরাও পাল্টা গুলি ছুড়লে দুপক্ষের মধ্যে গোলাগুলি চলতে থাকে। র‌্যাব মহাপরিচালক আরো জানান,নব্য জঙ্গী সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারকিয়ার সদস্যদের অর্থের বিনিময়ে পাহাড়ের দূর্গমাঞ্চলে বিভিন্ন স্থানে জঙ্গী প্রশিক্ষণে সহযোগিতা করে আসছে পাহাড়ের সশস্ত্র সংগঠন কুকি চীন ন্যাসনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ), আর এমন সংবাদে ইতিমধ্যে র‌্যাবের অভিযানে বান্দরবানের দুর্গম উপজেলা রুমা, রোয়াংছড়ি, থানচির বিভিন্নস্থান থেকে ৩৮জন জঙ্গী সদস্য এবং ১৪জন কেএনএফ সদস্যকে যৌথবাহিনী আটক করে মামলা দায়ের করে হাজতে প্রেরন করেছে। পাহাড়ে এই সশস্ত্র গোষ্টিকে নিমুল না করা পর্যন্ত এই অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে ও জানান র‌্যাবের মহাপরিচালক ।
 
এসময় প্রেস ব্রিফিংয়ে র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন, র‌্যাব  গোয়েন্দা শাখার পরিচালক মশিউর রহমান জুয়েল,বান্দরবানের বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সংবাদকর্মী এবং র‌্যাবের  বিভিন্ন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, ২০২০সাল থেকে পাহাড়ের ক্ষুদ্র নৃগোষ্টি বম সম্প্রদায়ের কিছু বিপথগামী যুবক কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ) নামে একটি সশস্ত্র সংগঠন গড়ে তুলে আর পরবর্তীতে তাদের আশ্রয়ে শসস্ত্র প্রশিক্ষণে যুক্ত হয় সমতল থেকে আসা নব্য জঙ্গী সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারকিয়ার বেশ কিছু সদস্য। এদিকে তাদের নিমূলে ২০২২সালের অক্টোবর মাস থেকে পাহাড়ে অভিযান চালাচ্ছে যৌথবাহিনীর বাহিনীর সদস্যরা।   

বান্দরবান |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions