পার্বত্য চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী বৈসাবিকে প্রাণবন্ত করে তোলার আহ্বান

প্রকাশঃ ২৮ মার্চ, ২০২৪ ০৩:৩৩:৫৩ | আপডেটঃ ২১ মে, ২০২৪ ০১:৪৮:৫৬

সিএইচটি টুডে ডট কম, খাগড়াছড়ি। পার্বত্য চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী বৈসু,সাংগ্রাই,বিঝু (মধ্যাক্ষর বৈসাবি) বাংলা নববর্ষ-১৪৩১ উদযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৮মার্চ) সকালে জেলা পরিষদের সম্মলেন কক্ষে সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে  সভাপতিত্ব করেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী

 

সময় সভাপতির বক্তব্যে মংসুইপ্রু চৌধুরী বলেন, পাহাড়ের ঐতিহ্যবাহী এই উৎসকে আরো প্রাণবন্ত করতে সকলের সহযোগিতা প্রত্যাশা করে আয়োজনের  নানা দিক তুলে ধরা হয়। সময় দিক নির্দেশনা, প্রস্তুতি, উপস্থিতি, র‌্যালিসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করা হয়। 

 

অন্যান্য বক্তারা  সকল সম্প্রদায়ের বর্ণিল ঐতিহ্যবাহী পোশাকে এই র‌্যালিতে অংশ নেবেন। "ধর্ম যার যার উৎসব সবার" স্লোগানকে আরো উৎজীবিত করে তুলবে বলে মন্তব্য করেন  

 

 

বর্ণাঢ্য র‌্যালির মাধ্যমে বৈসাবি' আনন্দঘন উৎসবমুখর আয়োজন চলবে এপ্রিল থেকে এপ্রিল পর্যন্ত। এপ্রিল সকাল ৯টায় খাগড়াছড়ি টাউন হল থেকে শুরু হয়ে প্রধান প্রধান সড়ক ঘুরে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্টি সাংস্কৃতিক ইনস্টিটিউটে প্রাঙ্গনে এসে শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। বৈসাবি উপলক্ষে আলোচনা সভা,সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান,চিত্রাঙ্কণ প্রতিযোগিতা,খেলাধুলা থেকে শুরু করে নানা আয়োজন থাকবে উৎসবকে ঘিরে

 

সভায় শরনার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্সের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কৃষ্ণ চন্দ্র চকমা,খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা সুমন চৌধুরী,নির্বাহী কর্মকর্তা টিটন খীসা,খাগড়াছড়ি জেলা প্রশাসকের প্রতিনিধি সহকারী কমিশনার এস. এম নুরুন্নবী,খাগড়াছড়ি রিজিয়নের প্রতিনিধি (ডিকিউ) মেজর রেজাউল করিম,খাগড়াছড়ির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. জসিম উদ্দিন,পরিষদের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো: সাইফুল্লাহ,জনসংযোগ কর্মকর্তা চিংলামং চৌধুরী,খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ সদস্য কল্যাণ মিত্র বড়ুয়া,নিলোৎপল খীসা,খোকনেশ্বর ত্রিপুরা, হিরন জয় ত্রিপুরা,ক্যজরী মারমসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা,সাংবাদিকরা অংশ নেন 

 

সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions