শুক্রবার | ১৯ এপ্রিল, ২০১৯
আওয়ামীলীগের সভাপতি সুরেশ কান্তি তংচঙ্গ্যা হত্যার ৪দিন পর মামলা

বিলাইছড়িতে শুভ মঙ্গল চাকমাসহ ২০জনকে এজাহারভুক্ত করে মামলা, আটক ১

প্রকাশঃ ২৩ মার্চ, ২০১৯ ০২:০৯:৪৭ | আপডেটঃ ১৮ এপ্রিল, ২০১৯ ০১:৪৫:৪৬  |  ৩০০০
সিএইচটি টুডে ডট কম, রাঙামাটি। রাঙামাটির বিলাইছড়িতে উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি সুরেশ কান্তি তংচঙ্গ্যা হত্যাকান্ডের ৪দিন পর মামলা করেছেন উপজেলা যুবলীগের অর্থ সম্পাদক মনির হোসেন। এতে বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান শুভ মঙ্গল চাকমাসহ এজাহার নামীয় ২০জন ও অজ্ঞাতনামা ৮জনকে আসামী করা হয়।  আজ শনিবার ভোরে বিলাইছড়ি থানায় এই মামলা দায়ের করা হয়। বিলাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পারভেজ আলী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আসামীদের বেশীর ভাগই জেএসএস কর্মী বলে জানা গেছে।

গত ১৯ মার্চ বিলাইছড়ির ফারুয়া থেকে বিলাইছড়ি সদরে ফেরার পথে আলিখ্যং নামক এলাকায় ইঞ্জিন চালিত বোট থেকে বিলাইছড়ি উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি সুরেশ কান্তি তংচঙ্গ্যাকে নামিয়ে স্ত্রী ও সন্তানের সামনে গুলি করে হত্যা করে সন্ত্রাসীরা। ঘটনার আওয়ামীলীগ জেএসএসকে দায়ী করলেও জেএসএস ঘটনার সাথে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেছে।

এদিকে বিলাইছড়ি আওয়ামীলীগ সভাপতি সুরেশ কান্তি তংচঙ্গ্যা হত্যা মামলার এজাহারভুক্ত আসামী স্নেহাশীষ চাকমা ওরফে আশিষকে গ্রেফতার করেছে যৌথবাহনী। আজ সকালে রাঙামাটি পৌরসভার বনরুপা এলাকার বলপিয়ে আদম এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। স্নেহাশীষ চাকমা ওরফে আশিষ বনরুপা সমতাঘাট ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি। গ্রেফতারকৃত ব্যাক্তি ছাত্র জীবনে পাহাড়ী ছাত্র পরিষদের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিল।

এদিকে রাঙামাটি কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মীর জাহেদুল হক রনি বলেছেন, সকালে যৌথবাহিনীর অভিযানে স্নেহাশীষ চাকমা ওরফে আশিষকে গ্রেফতারের পর পুলিশে হস্তান্তর করা হয়েছে। তিনি আরো জানান, সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে যৌথবাহিনীর অভিযান অব্যাহত থাকবে।


রাঙামাটি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions