সোমবার | ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৮

সাংগ্রাই এর জলকেলীতে আনন্দে মাতোয়ারা বান্দরবানের-রেইছাবাসী

প্রকাশঃ ১৬ এপ্রিল, ২০১৮ ০৮:৫২:১৩ | আপডেটঃ ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০৬:৫৩:২১  |  ৪০৬

বর্ষবরন সাংগ্রাই এর উৎসবে মেতে উঠেছে বান্দরবানের মারমা সম্প্রদায়। এটি এখন শুধু মারমাদের না, এই উৎসব এখন সার্বজনীন উৎসবে পরিনত হয়েছে। পুরো এলাকা জুড়ে চলছে পানি খেলা। শিশু থেকে শুরু করে তরুন তরুনী এমনকি বয়স্করাও একে অপরের গায়ে পানি ঢেলে নতুন বছরটাকে বরন করে নিচ্ছে। উৎসবে যোগ দিয়েছে নানান সম্প্রদায়ের মানুষ। আনন্দ উদ্দীপনা আর সাংস্কৃতিক বৈচিত্রে বর্ণিল হয়ে উঠেছে বান্দরবানের রেইছা এলাকা।
মারমা সম্প্রদায়ের সাংগ্রাই উৎসব উপলক্ষ্য সোমবার বিকেলে রেইছা থলি পাড়া মাঠ প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হয় তরুন তরুনীদের জলকেলি উৎসব। এসময় পাশাপাশি মঞ্চে চলে সাংগ্রাই এর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আর দল বেধেঁ পানি খেলা প্রতিযোগিতায় নেচে গেয়ে আনন্দ উৎসবে নানান রঙ্গের পোশাক পড়ে বান্দরবান-রেইছার মারমা সম্প্রদায়।
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রেইছা থলি পাড়া সইত বৌদ্ধ বিহারে অধ্যক্ষ ভদন্ত উ য়াই না সারা ভান্তে, সিনিয়র পাড়ার বিহার অধ্যক্ষ ভদন্ত ন্যান্দা সারা ভান্তে,পার্বত্য চট্টগ্রামের মার্মা বিষয়ক ভাষাবিদ, বিশিষ্ট গবেষক ও লেখক জনাব শৈফুচিং মার্মা, অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা জনাব ম্রা থোয়াই মার্মা, উবাসিং মাষ্টার সহ উপাসক- উপাসিকাবৃন্দ।
এদিকে জলকেলি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি অনুষ্ঠিত হয় বিভিন্ন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরষ্কার বিতরনী অনুষ্ঠান। রশি টানা, তৈলাক্ত বাশেঁর উপর আরোহন, মেরাথন দৌড়, মিউজিক বল সহ আরো অনেক ইভেন্টে অংশগ্রহন করে সকলে। ১৬ এপ্রিল বৌদ্ধ বিহারে সমবেত প্রার্থনার মধ্য দিয়ে দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনায় শেষ হবে মারমা সম্প্রদায়ের এই সাংগ্রাই উৎসব।

লেখক : সুজন মার্মা সুজন, সিএইচটি টুডে ডট কম এর নিয়মিত পাঠক, বান্দরবান

শিল্প সাহিত্য ও সংস্কৃতি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions